আমাদের কথা ডেস্ক :

বাবা-মায়ের কবরের পাশে চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন সমাজকল্যাণ মন্ত্রী সৈয়দ মহসিন আলী। বুধবার বিকাল ৫টা ৩ মিনিটে মৌলভীবাজার শহরের শাহ মোস্তফা মাজারে বাবা-মায়ের কবরের পাশে রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় তাকে সমাহিত করা হয়। এরআগে বিকেল ৪টা ১০ মিনিটে মৌলভীবাজার সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে তার নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। জানাজার নামাজে ইমামতি করেন মৌলভীবাজার ডাউন মাদরাসার প্রিন্সিপাল মাওলানা আব্দুল কাইয়ুম সিদ্দীকি। এ সময় সেখানে উপস্থিত ছিলেন, জাতীয় সংসদের চিফ হুইপ আসম ফিরোজ, হুইপ শাহাব উদ্দিন আহম্মদ, সাবেক চিফ হুইপ উপাধক্ষ আবদুস শহিদ, সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী প্রমোদ মানকিন, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক জাকির হোসেনসহ মৌলভীবাজার প্রশাসনের কর্মকর্তারা।
এদিকে বুধবার ঢাকায় আনুষ্ঠানিকতা শেষে বীর মুক্তিযোদ্ধা সমাজকল্যাণ মন্ত্রী সৈয়দ মহসিন আলী এমপির মরদেহ বহনকারী হেলিকপ্টর দুপুর সাড়ে ১২টায় যখন মৌলভীবাজার এম সাইফুর রহমান স্টেডিয়ামে অবতরণ করে তখন সেখানে এক আবেগঘন দৃশ্যের সৃষ্টি হয়। তারপর মরদেহটি শহরের দর্জি মহলের প্রিয় বাড়িতে নিয়ে যাওয়া হয়।
বুধবার দুপুর ২টা ৫৮ মিনিটে মরদেহটি আনা হয় মৌলভীবাজার সরকারী উচ্চ বিদ্যালয় মাঠের শহীদ মিনারে। সেখানে শ্রদ্ধার্ঘ নিবেদন জানান মৌলভীবাজার আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ সংগঠনের নেতা-কর্মী, প্রশাসনিক কর্মকর্তা, জনপ্রতিনিধি, বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতৃবৃন্দ, মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড সংসদ, সাংবাদিক, শিক্ষক সমাজসহ বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক দলের নেতৃবৃন্দরা। বিকাল ৪টায় বিদ্যালয় মাঠে জানাজার নামাজ অনুষ্ঠিত হয়।
উল্লেখ গত ১৪ সেপ্টেম্বর (সোমবার) স্থানীয় সময় সকাল ১০টা ৫৯ মিনিটে সিঙ্গাপুর জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মহসিন আলীর মৃত্যু হয়। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৭ বছর। মঙ্গলবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে সিঙ্গাপুর থেকে মহসিন আলীর মরদেহ ঢাকায় এসে পৌঁছায়।