স্টাফ রিপোর্টার :
প্রবাসীকে অপহরণের ঘটনায় আখাউড়ায় উপজেলা আওয়ামী লীগের আহবায়কের ভাতিজাসহ তিন অপহরনকারিকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। আখাউড়া পৌর এলাকার বড় বাজার থেকে অপহরনের কয়েকঘন্টা পর পুলিশ সদর উপজেলার কোড্ডা গ্রাম থেকে অপহৃতকে উদ্ধার ও ওই তিনজনকে উদ্ধার করে। এ ঘটনায় আখাউড়া থানায় মামলা হয়েছে। গ্রেপ্তারকৃতরা হচ্ছে, মো. সোহেল মিয়া (৩২), মো. রুবেল মিয়া (৩০) ও মো. ওয়াসিম (৩২)। তাদের সবার বাড়ি সদর উপজেলার বরিশল গ্রামে। এর মধ্যে রুবেল মিয়া আখাউড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের আহবায়ক অধ্যক্ষ জয়নাল আবেদীনের ভাই মো. জামাল উদ্দিনের ছেলে।
আখাউড়া থানার ওসি ইসমত আরা জানান, চাঁদা না পেয়ে হত্যার উদ্দেশ্যেই প্রবাসীকে অপহরন করা হয়। খবর পেয়ে পুলিশ ওই তিনজনকে গ্রেপ্তার করে আদালতে পাঠানো হয়েছে। জবানবন্দির জন্য ভিকটিমকেও আদালতে পাঠানো হয়।   অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, বরিশল গ্রামের বাসিন্দা ও সৌদি আরব প্রবাসী মো. জালাল মিয়াকে গত বুধবার দুপুরে আখাউড়া বড় বাজার থেকে অপহরন করা হয়। অপহরনকারিরা জামাল মিয়ার কাছ থেকে দুই লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে। চাঁদা না পেয়ে তাকে হত্যারও চেষ্টা করা হয়। এক পর্যায়ে তাকে নিয়ে যাওয়া হয় কোড্ডা গ্রামে। এলাকার লোকজন খবর পেয়ে ওই তিন অপহরকারিকে আটক করে। পরে পুলিশ এসে অপহরনকারিদেরকে গ্রেপ্তার করে থানায় নিয়ে যায়। রাতেই জালাল মিয়ার ভাই জাফর মিয়া বাদী হয়ে আখাউড়া থানায় মামলা দায়ের করেন।
এদিকে স্থানীয় একটি সূত্র জানায়, মূলত গরু চুরির ঘটনাকে কেন্দ্র করেই এর সূত্রপাত। গরু চুরির ঘটনাকে কেন্দ্র করে বরিশল এলাকায় দীর্ঘদিন যাবত তোলপাড় চলছে। এলাকার লোকজন একাধিক গরু চোরকে ধরে ইতিমধ্যেই পুলিশে সোপর্দ করেছে।