ফিলিস্তিন রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার সংগ্রামকে মুসলিম বিশ্বের প্রধান ইস্যু হিসেবে উল্লেখ করেছেন ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহ খামেনি।

তেহরানভিত্তিক সংবাদমাধ্যম পার্সটুডের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ইহুদিবাদী ইসরায়েলের বিরুদ্ধে জিহাদকে প্রত্যেক মুসলমানের অপরিহার্য দায়িত্ব বলে মন্তব্য করেছেন তিনি।

পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষে মুসলিম দেশের রাষ্ট্রদূত, ইরানের সরকারি কর্মকর্তা ও সাধারণ মানুষের অংশগ্রহণে এক অনুষ্ঠানে যোগ দেন ইরানের সর্বোচ্চ নেতা খামেনি। ‘ইসলামি শরীয়াহ অনুসারে কোনও শত্রু মুসলমানদের ভূমি দখল করলে সেই শত্রুর বিরুদ্ধে জিহাদ করা প্রত্যেকের দায়িত্ব হয়ে দাঁড়ায়’।

সর্বোচ্চ নেতা বলেন, ফিলিস্তিনি হচ্ছে মুসলমানদের জন্য প্রধান ইস্যু, কিন্তু কিছু মুসলিম দেশের কর্মকাণ্ডে মনে হচ্ছে,তারা ফিলিস্তিন ইস্যুকে উপেক্ষা করছে এবং ভুলে গেছে। তার মতে, ‘ইহুদিবাদী সরকারের বিরুদ্ধে লড়াই করা এখন সব মুসলমানের জন্য বাধ্যতামূলক হয়ে গেছে কিন্তু কেন অনেকেই তা থেকে সরে দাঁড়াচ্ছে?’

চলমান প্রেক্ষাপটে মুসলমানদের মধ্যকার অনৈক্যকে সবচেয়ে বড় সমস্যা বলে উল্লেখ করেন সর্বোচ্চ নেতা। মুসলমানদের স্বার্থেই এ সমস্যার সমাধান করা দরকার বলে তিনি মন্তব্য করেন। এ সময় তিনি ইয়েমেন, সিরিয়া, ইরাক ও উত্তর আফ্রিকার কিছু দেশ নিয়ে কথা বলেন। সর্বোচ্চ নেতা আরো বলেন, মুসলমানদের মধ্যে দ্বিধাবিভক্তি ও বিদ্বেষ সৃষ্টি ইসলাম এবং মুসলমানদের জন্য ক্ষতি বয়ে আনবে।