দাতের গোড়া দিয়ে রক্ত পড়া

22 March, 2019 : 12:05 pm ৫৬৩

ডেস্ক।।

অনেকেরই অভিযোগ দাত ব্রাশ করতে গেলে দাতের গোড়া দিয়ে রক্ত পড়ে, অনেকের কোন কিছুতে কামড় দিলে বা দাতে সামান্য চাপ লাগলেই রক্ত পড়তে থাকে,আবার অনেকের যে কোন সময় এমনিতেই মাড়ি থেকে রক্ত পড়ে।আমরা এই সমস্যাটাকে বলি Gum Bleeding. অনেকেই এই সমস্যাটাকে গুরুত্ব দেন না।ফলশ্রুতিতে তারা দাত পড়ে যাওয়া সহ নানা জটিলতায় ভুগেন।

কারন :

অধিকাংশ ক্ষেত্রে মাড়ি থেকে রক্ত পড়ার কারণ হিসেবে প্লাককে (খাদ্যকণা ও ব্যাকটেরিয়া সহযোগে এক প্রকার আঠালো দ্রব্য) দায়ী করা হয়। প্লাক মাড়ির মার্জিন বরাবর দাতের সাথে আঠালোভাবে লেগে থাকে এবং একপর্যায়ে তা কঠিন ক্যালকুলাসে রূপ ধারণ করে যা পরবর্তী সময়ে মাড়ির প্রদাহ রোগ জিনজিভাইটিস ও পেরিওডোন্টাইটিসে রূপ নেয় এবং সামান্য চাপ বা আঘাতে মাড়ি থেকে রক্ত পড়তে থাকে। এই অবস্থা অনেক দিন চলতে থাকলে বা চিকিৎসার কোনো প্রকার উদ্যোগ না নিলে হাড় ক্ষয় হয় এবং দাঁত নড়তে থাকে একর্পযায়ে দাঁত পড়ে যায়।
অন্যান্য কারনের মধ্যে উল্লেখযোগ্য হল :-
শক্ত ব্রিসলযুক্ত টুথব্রাশ ব্যবহারের সময় মাড়ি আঘাতপ্রাপ্ত সময়ে গর্ভবতী মায়েদের হরমোনের তারতম্য হওয়ায়।
রক্ত সম্পর্কিত কোনো রোগ থাকা। যেমন : এনিমিয়া(রক্তশূন্যতা), লিউকোমিয়া(যা ব্লাড ক্যান্সার নামে সমধিক পরিচিত),এপ্লাস্টিক এনিমিয়া, থ্রাম্বোসাইটোপেনিয়া,ইডিওপ্যাথিক থ্রম্বসাইটিক পারপিউরা,হিমোফিলিয়া,ডেঙ্গু ইত্যাদি।
এসপিরিন জাতীয় ওষুধ সেবন করার। ভিটামিন-সি এর অভাবে।
ডায়াবেটিকস এর রোগীদের। দাঁত অথবা মাড়ি সংক্রান্ত অন্যান্য কিছু রোগ হলে।
এছাড়া অনেক সময় আঘাতজনিত কারণে মুখ বা মাড়ি থেকে এ ধরনের সমস্যা দেখা দিতে পারে।

চিকিৎসাঃ

এই রোগের লক্ষণ দেখার পর পরই একজন অভিজ্ঞ ডেন্টাল সার্জনের সঙ্গে যোগাযোগ করতে হবে। যদি প্লাক এবং ক্যালকুলাসের জন্য সমস্যাটি হয় তবে স্কেলিংয়ের মাধ্যমে দাঁতের গোড়া থেকে প্লাক ও ক্যালকুলাস পরিষ্কার করতে হবে। প্রয়োজনে চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী ওষুধ খেতে হবে। এ ছাড়া অন্য কারনে হলে সঠিক রোগ নির্ণয়ের জন্য কিছু টেস্ট করে নিশ্চিত হয়ে তদানুযায়ী চিকিতসা করতে হবে।
তাৎক্ষণিক ভাবে মাড়ি থেকে রক্ত পড়া বন্ধ করতে এক টুকরো পরিষ্কার কাপড় ঠান্ডা পানিতে ভিজিয়ে রক্ত পড়ার স্থানে চাপ দিয়ে ধরুন।এই সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে নিয়মিত সকালে ও রাতে ব্রাশ করুন,নিয়মিত ফ্লসিং করুন এবং বছরে অন্তত দুইবার ডেন্টিস্টের কাছে গিয়ে ডেন্টাল চেক আপ করান।

[gs-fb-comments]