আধঘণ্টার মধ্যে মা-ছেলের সংসার ছাইয়ে পরিণত

23 March, 2019 : 11:13 am ২৩

অভয়নগর।।

নেই বিদ্যুত। সন্ধ্যা হয়েছে মাত্র।বাক প্রতিবন্ধী বৃদ্ধ মা ঘরের মধ্যে সন্ধ্যাপ্রদীপ জ্বালিয়ে রান্নাঘরে চলে গেলেন। সন্ধ্যাপ্রদীপ দেওয়া ঘরে হঠাৎ আগুন। যে আগুন মাত্র আধঘণ্টার মধ্যে মা-ছেলের সংসার ছাইয়ে পরিণত করল।

হৃদয়বিদারক এ ঘটনাটি ঘটে শুক্রবার রাতে যশোরের অভয়নগর উপজেলার সুন্দলী ইউনিয়নের আড়পাড়া গ্রামের মৃত অনন্ত মল্লিকের বাড়িতে। খবর পেয়ে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা রিজিবুল ইসলাম ঘটনাস্থল পরিদর্শন ও সহযোগিতার আশ্বাস দিলেন।

সরেজমিনে ঘটনাস্থলে পৌঁছে দেখা যায়, মা দীপালী মল্লিক ও তার একমাত্র সন্তান বরুণ মল্লিক (২৩) খোলা আকাশের নিচে বসে চোখের জল মুছছেন। পাশে ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান বিকাশ রায় কপিল ও প্রতিবেশী মহিলারা পরিবারটিকে সান্ত্বনা দেওয়ার চেষ্টা করছে। অসহায় মা ইশারা-ইঙ্গিতে কিছু বলার চেষ্টা করছিলেন। এ সময় ছেলে মায়ের হয়ে জানালেন, বাবার মৃত্যুর পর মামাদের জমিতে টিনশেডের দুই রুম করে তাদের বসবাস শুরু। নিজেস্ব কোনো সম্পত্তি ছিল না। মা কথা বলতে পারে না। সে বিভিন্ন মৎস্য ঘেরে কাজ করে সংসার চালায়। সন্ধ্যাপ্রদীপের আগুন থেকে আগুনের সূত্রপাত। যে আগুনে পুড়ে যায় নগদ অর্থ, হাস-মুরগি, আসবাবপত্রসহ সবকিছু। শুধু পরনের কাপড় আর গোয়ালের একটি গরু ছাড়া সবকিছু পুড়ে ছাই হয়ে যায় আগুনে।

এ ব্যাপারে প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা রিজিবুল ইসলামর জানান, রাতেই ঘটনাস্থলে পৌঁছে ইউএনও’র নির্দেশ মোতাবেক সবরকম সরকারি সহযোগিতা প্রদানের আশ্বাস দেওয়া হয়েছে। যেহেতু সরকারি বিষয় এক সপ্তাহ সময় লাগতে পারে।

ইউপি চেয়ারম্যান বিকাশ রায় কপিল জানান, আশপাশে ঘরবাড়ি না থাকায় আগুন নেভানো সম্ভব হয়নি। ফায়ার সার্ভিস আসার আগেই সবকিছু পুড়ে যায়। মা ও ছেলেকে তাদের এক আত্মীয়ের বাড়িতে থাকা-খাওয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

[gs-fb-comments]