বাল্যবিয়ে বন্ধ করলেন সদর ইউএনও

3 January, 2020 : 3:44 pm ১৬৬

ব্রাক্ষনবাড়িয়া।।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় সপ্তম শ্রেণির ছাত্রীর বাল্যবিয়ে বন্ধ করলেন সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) পঙ্কজ বড়ুয়া।এবিয়ে আয়োজনের দায়ে ছাত্রীর বাবাকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

শুক্রবার বিকেল ৪টার দিকে ইউএনও নিজে সদর উপজেলার ঘাটুরা এলাকায়‌ স্কুলছাত্রীর বাড়িতে হাজির হয়ে এই বিয়ে বন্ধ করেন।স্থানীয় বাসিন্দা, পুলিশ ও ইউএনওর কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, সদর উপজেলার এক যুবকের সঙ্গে ঘাটুরা এলাকার একটি গ্রামের সপ্তম শ্রেণির ছাত্রীর বিয়ের আয়োজন করে উভয় পরিবারের লোকজন। শুক্রবার দুপুরের পর মেয়ের বাড়িতে শুরু হয় অতিথিদের আপ্যায়ন।স্থানীয় লোকজন উপজেলা প্রশাসনকে বিষয়টি অবগত করেন। ইউএনও পঙ্কজ বড়ুয়া পুলিশ নিয়ে ওই কিশোরীর বাড়িতে উপস্থিত হয়ে বাল্যবিয়ে বন্ধ করে দেন। অপ্রাপ্ত বয়স্ক জেনেও বিয়ে দিতে রাজি হওয়ায় ভ্রাম্যমাণ আদালত ছাত্রীর বাবাকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করেন। আর প্রাপ্তবয়স্ক না হওয়া পর্যন্ত বিয়ে দেবেন না মর্মে ওই ছাত্রীর মা-বাবাকে মুচলেকা দেন।

[gs-fb-comments]