আখাউড়া ও নাসিরনগরে আরো দুজন করোনায় আক্রান্ত

17 April, 2020 : 1:19 pm ১৯৯

ব্রাক্ষনবাড়িয়া।।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগরে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত মালয়েশিয়া প্রবাসীর পরিবারের আরো এক সদস্য আক্রান্ত হয়েছেন। এ নিয়ে ওই পরিবারের পাঁচজন আক্রান্ত হলেন।
শুক্রবার দুপুরে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. অভিজিৎ রায়। তিনি জানান, জ্বর, শ্বাসকষ্ট ও সর্দিতে ৭ এপ্রিল রাতে ওই প্রবাসীর মৃত্যু হয়। পরে নমুনা পরীক্ষা করে তার শরীরে করোনাভাইরাসের অস্তিত্ব পাওয়া যায়। এরপর প্রবাসীর স্ত্রী, মেয়ে ও এক ভাইয়ের শরীরেও করোনাভাইরাসের অস্তিত্ব পাওয়া যায়। তাদের ব্রাহ্মণবাড়িয়া বক্ষব্যাধি হাসপাতালের আইসোলেশন ইউনিটে রাখা হয়েছে। ডা. অভিজিৎ আরো জানান, শুক্রবার ওই প্রবাসীর আরেক ভাই করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হন। তাকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া বক্ষব্যাধি হাসপাতালে পাঠানোর প্রক্রিয়া চলছে। এ ঘটনায় আক্রান্তদের বাড়ি ও আশপাশের কয়েকটি বাড়ি লকডাউন করা হয়েছে। এদিকে আখাউড়ায় রত্না বেগম (২৯) নামে আরও এক মহিলা করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। আজ শুক্রবার বিকালে আখাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আরএমও ডা: শ্যামল চন্দ্র ভৌমিক এই তথ্য দিয়েছেন।জানাগেছে, আক্রান্ত মহিলার বাড়ি আখাউড়া উত্তর ইউনিয়নের আমোদাবাদ গ্রামে। আক্রান্ত রত্না বেগম পূর্বে আক্রান্ত লিজা আক্তারে বড় বোন। আক্রান্ত রত্না বেগমকে অসুস্থ্য অবস্থায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া আইসোলেশনে পাঠানো হয়েছে বলে স্বাস্থ্য বিভাগ জানিয়েছেন। খোজ নিয়ে জানাগেছে, সম্প্রতি রত্না বেগম ঢাকা থেকে আমোদাবাদ গ্রামের বাড়িতে ফিরেন। বাড়িতে তার সংস্পর্শে থেকে কয়েকদিন পরই তার ছোট বোন লিজা আক্তার করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়।পরে লিজাকে আইসোলেশনে পাঠায় স্বাস্থ্য বিভাগ। রত্না বেগমকে নিয়ে আখাউড়ায় করোনা ভাইরাস আক্রান্তের সংখ্যা ৯ জনে দাড়িয়েছে। আখাউড়া মোগড়া ইউনিয়নের গঙ্গানগর গ্রামের একই পরিবারের ২ জন, চরনারায়নপুর গ্রামের ৩ জন, আমোদাবাদ গ্রামের ২ জন, ধরখার ইউনিয়নের রানীখার গ্রামে ১ জন এবং আখাউড়া পৌরসভার দেবগ্রামে ১ জন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। রাণীখার গ্রামে আক্রান্ত রিপনা বেগমের মৃত্যু হয়েছে।

[gs-fb-comments]