হিন্দু মহাজোটের নাম ও লঘু অবৈধভাবে একটি ব্যবহার করছে– এড. গোবিন্দ চন্দ্র প্রামানিক

29 April, 2019 : 7:04 am ৫৭০

ঢাকা।।

বাংলাদেশ জাতীয় হিন্দু মহাজোট সরকারী রেজিষ্ট্রেশন প্রাপ্ত একটি সংগঠন। অনুমোদিত বৈধ ব্যক্তি ছাড়া সংগঠণটির নাম ও লোগো ব্যবহার অাইনত দন্ডনীয় অপরাধ। গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, রাষ্ট্রপতি, স্বরাস্ট্র মন্ত্রী, সহ ভারতের প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্র মন্ত্রী, স্বরাস্ট্র মন্ত্রী, সাইন্স এন্ড টেকনোলজি মন্ত্রী, সংখ্যলঘু বিষয়ক মন্ত্রী, বিশ্ব হিন্দু পরিষদ, আর এস এস, জাতিসংঘের বাংলাদেশ প্রতিনিধি, ইউরোপীয় ইউনিয়ন প্রতিনিধির আমন্ত্রনে বিভিন্ন সময় বাংলাদেশের সংখ্যালঘু হিন্দু সম্প্রদায়ের সমস্যা ও সমাধান নিয়ে হিন্দু মহাজোট নেতৃবন্দ মতবিনিময় করেছেন। এ ছাড়াও লাঙ্গল বন্ধ স্নান ঘাট পরিচ্ছন্ন, সেবা ক্যাম্প স্থাপন, ২০০৬ সসাল থেকে বিভিন্ন সময় হিন্দু নির্যাতনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ এবং নিপিড়িত মানুষের পাশে থেকে এবং সর্ব প্রকার সহযোগীতা দিয়ে আসছে। কিন্তু কতিপয় দুষ্কৃতিকারী ব্যক্তিগত লোভ চরিতার্থ করতে হিন্দু মহাজোটের নাম ও লোগো ব্যবহার করে হিন্দু মহাজোটের সুনাম ক্ষুন্ন করলে হিন্দু মহাজোট নেতৃবৃন্দের ঐসব দুষ্কৃতিকারীদের বিরুদ্ধে ঢাকার ৬ষ্ট সহকারী জজ আদালতে মোকদ্দমা আনায়ন করেনন। বিজ্ঞ আদালত বিবাদীদের হিন্দু মহাজোটের নাম ও লোগো ব্যবহারের উপর নিষেধাজ্ঞা জারী করেছে।
কিন্তু তার পরও আমরা লক্ষ করছি দুষ্টচক্র হিন্দু মহাজোটের নাম ও লোগো ব্যবহার করে বিভিন্ন স্থানে চাঁদাবাজী সহ নানা অপকর্ম করছে। সেকারনে সকল জেলা ও থানা নেতৃবৃন্দকে জানানো যাচ্ছে যে হিন্দু মহাজোটের মাননীয় সভাপতি ব্রিগেডিয়ার জেনারেল জয়ন্ত কুমার সেন, নির্বাহী সভাপতি অ্যাডঃ দীনবন্ধু রায় এবং মহাসচিব অ্যাডঃ গোবিন্দ চন্দ্র প্রামাণিকের অনুমোদন ব্যতিরেকে কেউ হিন্দু মহাজোটের নাম লোগো ব্যবহার করলে সংগে সংগে রেজিষ্ট্রশন এর কপি ও আদালতের নিষেধাজ্ঞার আদেশ সহ পুলিশকে জানান। কারণ আদালতের আদেশ বাস্তবায়ন করার দ্বায়িত্ব পুলিশের।

[gs-fb-comments]
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com