ব্রাহ্মণবাড়িয়া।। নিখোঁজের একদিন পর ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগরে লঙ্গন নদী থেকে আব্দুস সালাম (৬৫) নামে এক কৃষকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার (২১ নভেম্বর) বিকেলে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়। সালাম বুড়িশ্বর ইউনিয়নের শ্রীঘর গ্রামের মোতালেব মিয়ার ছেলে। পুলিশ জানায়, সালাম বুধবার (২০ নভেম্বর) ভোর ছয়টার সময় মেদিনী হাওরে নিজের জমিতে কাজ করতে বাড়ি থেকে বের হন। হাওরে যেতে লঙ্গন নদী পার হতে হয়। নদী সাঁতরে পার হওয়ার সময় ডুবে গিয়ে সালাম মারা যান। এরপর অনেক খোঁজাখুঁজি করেও তার কোনো সন্ধান পাওয়া যায়নি। বৃহস্পতিবার বিকেলে লঙ্গন নদীতে একটি মরদেহ পানিতে ভেসে থাকতে দেখে স্থানীয়রা থানায় খবর দেয়। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে মরদেহটি উদ্ধার করে। নাসিরনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাজেদুর রহমান বলেন, সালামের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য জেলা সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্তের পর মৃত্যুর কারণ জানা যাবে "/>

নাসিরনগরে নদী থেকে কৃষকের মরদেহ উদ্ধার

21 November, 2019 : 3:12 pm ২১৯

ব্রাহ্মণবাড়িয়া।।

নিখোঁজের একদিন পর ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগরে লঙ্গন নদী থেকে আব্দুস সালাম (৬৫) নামে এক কৃষকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার (২১ নভেম্বর) বিকেলে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়। সালাম বুড়িশ্বর ইউনিয়নের শ্রীঘর গ্রামের মোতালেব মিয়ার ছেলে। পুলিশ জানায়, সালাম বুধবার (২০ নভেম্বর) ভোর ছয়টার সময় মেদিনী হাওরে নিজের জমিতে কাজ করতে বাড়ি থেকে বের হন। হাওরে যেতে লঙ্গন নদী পার হতে হয়। নদী সাঁতরে পার হওয়ার সময় ডুবে গিয়ে সালাম মারা যান। এরপর অনেক খোঁজাখুঁজি করেও তার কোনো সন্ধান পাওয়া যায়নি। বৃহস্পতিবার বিকেলে লঙ্গন নদীতে একটি মরদেহ পানিতে ভেসে থাকতে দেখে স্থানীয়রা থানায় খবর দেয়। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে মরদেহটি উদ্ধার করে। নাসিরনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাজেদুর রহমান বলেন, সালামের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য জেলা সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্তের পর মৃত্যুর কারণ জানা যাবে

[gs-fb-comments]
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com